জেএফএ কাপে মাগুরা চ্যাম্পিয়ন

ভোরের বাংলাদেশ ডেস্ক ঃ

জাপান ফুটবল অ্যসোসিয়েশন (জেএফএ) কাপ অনূর্ধ্ব-১৪ জাতীয় নারী ফুটবল
চ্যাম্পিয়নশিপ-২০২০ এর চূড়ান্তপর্বে মাগুরা জেলা চ্যাম্পিয়ন হয়েছে। আজ সোমবার
বিকেলে রাজশাহীর মুক্তিযুদ্ধ স্মৃতি স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ফাইনালে রংপুর জেলাকে ৩-
১ গোলে হারিয়ে শিরোপা জিতে নেয়। রানার্স-আপ হয় রংপুর।
ফাইনালে মাগুরার অধিনায়ক নবিরন খাতুন জোড়া গোল করেন। তিনি ম্যাচের ২০ ও ৪৮
মিনিটে গোল দুটি করেন। অপর গোলটি করেন অর্পিতা বিশ^াস ম্যাচের ৬৪ মিনিটে।
রংপুরের হয়ে ম্যাচের ১৪ মিনিটে একমাত্র গোলটি করেন খাদিজা। ফাইনালে ম্যাচসেরা
নির্বাচিত হন মাগুরার নবিরন খাতুন।
জেএফএ কাপের চ্যাম্পিয়ন ও রানার্স-আপ দলকে ট্রফি, মেডেল ও প্রাইজমানি
প্রদান করা হয়। চ্যাম্পিয়ন দল মাগুরাকে ৫০ হাজার ও রানার্স-আপ দল রংপুরকে ২৫
হাজার টাকা প্রাইজমানি দেওয়া হয়। চ্যাম্পিয়ন দলের সকল খেলোয়াড় ও
কর্মকর্তাদের ওয়ালটন গ্রুপের পক্ষ থেকে হোম অ্যাপ্লায়েন্স দিয়ে উৎসাহিত করা
হয়। এ ছাড়া ফেয়ার প্লে ট্রফি, টুর্নামেন্টের সর্বোচ্চ গোলদাতা ট্রফি, টুর্নামেন্টের
সেরা খেলোয়াড় ট্রফি, সেরা উদীয়মান খেলোয়াড়কে ট্রফি, সেরা আঞ্চলিক ভেন্যুকে
ক্রেস্ট প্রদান করা হয়।
ফাইনালে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে ফাইনাল খেলা উপভোগ ও পুরস্কার
বিতরণ করবেন রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এ এইচ এম খায়রুজ্জামান লিটন।
বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন রাজশাহী জেলা প্রশাসক আব্দুল জলিল ও
পাওয়ার স্পন্সর ওয়ালটন গ্রুপের নির্বাহী পরিচালক এফএম ইকবাল বিন আনোয়ার
(ডন)। এ সময় বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের মহিলা উইং এর চেয়ারম্যান মিস মাহফুজা
আক্তার কিরণ, বাফুফে ও রাহশাহী জেলা ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের কর্মকর্তাগণ
উপস্থিত ছিলেন।
জেএফএ কাপের এবারের আসরের চূড়ান্তপর্বের প্রথম সেমিফাইনালে রংপুর জেলা ২-০
গোলে রাজশাহীকে হারিয়ে ফাইনালে নাম লেখায়। আর দ্বিতীয় সেমিফাইনালে মাগুরা
জেলা ৪-০ গোলে গাইবান্ধাকে হারিয়ে ফাইনাল নিশ্চিত করে।
আঞ্চলিক পর্ব পেরিয়ে আসা আটটি দলকে দুই গ্রুপে ভাগ করে চূড়ান্তপর্বের খেলা
অনুষ্ঠিত হয়। গ্রুপ পর্বের খেলা চলে ২ ডিসেম্বর পর্যন্ত। চূড়ান্তপর্বের ‘ক’ গ্রুপে

ছিল- রংপুর জেলা, খাগড়াছড়ি জেলা, কিশোরগঞ্জ জেলা ও গাইবান্ধা জেলা। আর ‘খ’
গ্রুপে ছিল- রাজশাহী জেলা, সাতক্ষীরা জেলা, নারায়ণগঞ্জ জেলা ও মাগুরা জেলা।
‘ক’ গ্রুপ থেকে রংপুর ও গাইবান্ধা আর ‘খ’ গ্রুপ থেকে মাগুরা ও রাহশাহী সেমিফাইনালে
ওঠে। ৪ ডিসেম্বর হেেলা দুটি সেমিফাইনাল। আর ৫ ডিসেম্বর ফাইনাল হওয়ার কথা
থাকলেও সেটি পিছিয়ে হচ্ছে ৭ ডিসেম্বর।
এবারের এই জেএফএ কাপের পাওয়ার স্পন্সর হিসেবে ছিল ক্রীড়াবান্ধব প্রতিষ্ঠান
ওয়ালটন গ্রুপ। এ নিয়ে ষষ্ঠবারের মতো জেএফএ কাপের সঙ্গে যুক্ত হয়েছিল ওয়ালটন
গ্রুপ।

এই রকম আরো কিছু খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button