বিশ্বকাপে দল বাড়াল আইসিসি

ভোরের বাংলাদেশ ডেস্ক ঃ
গুঞ্জনটা শোনা গিয়েছিল সপ্তাহ দুয়েক আগেই। ক্রিকেটবিষয়ক ওয়েবসাইট ইএসপিএনক্রিকইনফো জানিয়েছিল বিশ্বকাপে দল বাড়ানোর চিন্তাভাবনা করছে আইসিসি। আজ সেই গুঞ্জনকে আইসিসি বাস্তবে রূপ দিয়েছে। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের অভিভাবক সংস্থাটি বিবৃতি দিয়ে জানিয়েছে, ২০২৪ সালে থেকে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ও ২০২৭ সাল থেকে ওয়ানডে বিশ্বকাপে বাড়বে দলের সংখ্যা। বাতিল করে দেওয়া চ্যাম্পিয়নস ট্রফি ফিরিয়ে আনার ঘোষণাও দিয়েছে আইসিসি।

আজ ২০২৪ সাল থেকে ২০৩১ সালের সূচি পরিকল্পনা ঘোষণা করেছে আইসিসি। এই পরিকল্পনা অনুযায়ী আট বছরের চক্রে দুটি ওয়ানডে বিশ্বকাপ, চারটি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ও দুটি চ্যাম্পিয়নস ট্রফি আয়োজন করবে আইসিসি।

২০২৭ ও ২০৩১ সালের ওয়ানডে বিশ্বকাপ হবে ১৪ দলের। ২০২৪, ২০২৬, ২০২৮ ও ২০৩০ সালে ২০ ওভারের বিশ্বকাপে খেলবে ২০টি করে দল।
২০২৭ ও ২০৩১ সালের ওয়ানডে বিশ্বকাপ হবে ১৪ দলের। ২০১৯ সালের বিশ্বকাপে দলের সংখ্যা কমিয়ে ১০টি করে আইসিসি। ২০২৩ বিশ্বকাপটাও হবে ১০ দলের। দলের সংখ্যা কমানোয় কম সমালোচনা হয়নি আইসিসির। আইসিসি জানিয়েছে, ২০২৭ ও ২০৩১ সালে বিশ্বকাপ অনুসরণ করবে ২০০৩ সালের বিশ্বকাপের কাঠামো। দুই গ্রুপে ভাগ হয়ে প্রথম পর্ব খেলবে ১৪টি দল। প্রতি গ্রুপের শীর্ষ তিনটি দল উঠবে সুপার সিক্সে। এরপর সেমিফাইনাল ও ফাইনাল। সব মিলিয়ে ম্যাচ হবে ৫৪টি।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের সংক্ষিপ্ততম সংস্করণের বিশ্ব আসরে এখন খেলে ১৬টি দল। এ বছরের এবং পরের বছরের দুটি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপও হবে ১৬ দলকে নিয়েই। তবে ২০২৪, ২০২৬, ২০২৮ ও ২০৩০ সালে ২০ ওভারের বিশ্বকাপে খেলবে ২০টি করে দল। প্রথম পর্বে চার গ্রুপে ভাগ হয়ে খেলবে ২০ দল। প্রতি গ্রুপে দল থাকবে পাঁচটি। গ্রুপের শীর্ষ দুই দল উঠবে সুপার এইটে। এরপর সেমিফাইনাল ও ফাইনাল।

চ্যাম্পিয়নস ট্রফি হবে ২০২৫ ও ২০২৯ সালে। আগের মতোই আটটি দল দুই ভাগে ভাগ হয়ে খেলবে প্রথম পর্বে। এরপর সেমিফাইনাল ও ফাইনাল।

এর আগে গত ৮ মার্চ বিশ্ব নারী দিবসে মেয়েদের বৈশ্বিক টুর্নামেন্টের সংখ্যা ও সেসব টুর্নামেন্টে দলের সংখ্যা বাড়ানোর ঘোষণা দিয়েছিল আইসিসি। সেই পরিকল্পনা মতে ২০২৫ সালে ওয়ানডে বিশ্বকাপ আটটি দল খেললেও ২০২৯ বিশ্বকাপে খেলার কথা ১০টি দলের।

২০২৬ সাল থেকে মেয়েদের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে দলের সংখ্যা বাড়বে দুটি। এখন মেয়েদের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে খেলে ১০টি দল। ২০২৭ সালে থেকে মেয়েদের ক্রিকেটে টি-টোয়েন্টি চ্যাম্পিয়নস কাপ চালুর পরিকল্পনাও করেছে আইসিসি। ৬ দলের ওই টুর্নামেন্ট হবে চার বছর পরপর।

এই রকম আরো কিছু খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button