ভেঙে গেছে বিজয়ের ২৩ বছরের সংসার?

তামিল সিনেমার জনপ্রিয় অভিনেতা থালাপাতি বিজয়। ১৯৯৯ সালে ভালোবেসে বিয়ে করেন সংগীতাকে। ভারতের দক্ষিণী সিনেমার তারকা জুটিদের মধ্যে অন্যতম তারা। কয়েক দিন ধরে জোর গুঞ্জন উড়ছে, ভেঙে গেছে বিজয়-সংগীতার ২৩ বছরের সংসার। দুজনের সম্মতিতেই বিবাহবিচ্ছেদ হয়েছে এই দম্পতির।

বিজয়ের সংসার ভাঙার বিষয়টি এখন দক্ষিণী ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে বহুল চর্চিত। এ খবরের সত্যতা জানতে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম পিংকভিলা ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির অনেকের সঙ্গে যোগাযোগ করে। কিন্তু এই খবর সত্যি নয় বলে জানিয়েছে। একটি সূত্র পিংকভিলাকে বলেন— ‘বিজয়-সংগীতার বিয়েবিচ্ছেদের গুঞ্জনটি ভিত্তিহীন। জানি না এই খবর কোথা থেকে ছড়িয়েছে।’

কিছুদিন আগে পরিচালক অ্যাটলির স্ত্রী প্রিয়ার বেবি শাওয়ার অনুষ্ঠানে গিয়েছিলেন বিজয়। সম্প্রতি বিজয়ের পরবর্তী সিনেমা ‘বারিসু’-এর অডিও লঞ্চিং হয়। এ দুটি অনুষ্ঠানে স্ত্রীকে ছাড়াই হাজির হন বিজয়। তারপরই মূলত, বিয়েবিচ্ছেদের গুঞ্জন মাথাচাড়া দেয়। এখানেই শেষ নয়, বিজয়ের উইকিপিডিয়ার পেজেও সংগীতার সঙ্গে বিয়েবিচ্ছেদ দেখা যায়। যদিও পরবর্তীতে তারা এটি সংশোধন করে।

তবে এসব অনুষ্ঠানে বিজয়ের স্ত্রী উপস্থিত না থাকার কারণ ব্যাখ্যা করে সূত্রটি বলেন— ‘বিজয়ের স্ত্রী সংগীতা ছেলে-মেয়েকে নিয়ে বর্তমানে যুক্তরাষ্ট্রে ছুটি কাটাচ্ছেন। খুব শিগগির বিজয়ও তাদের সঙ্গে যোগ দেবেন। যার জন্য এ দুটো অনুষ্ঠানের কোনোটিতেই উপস্থিত ছিলেন না সংগীতা।’

সংসার ভাঙনের খবরে হইচই পড়ে গেলেও এসব বিষয়ে এখনো মুখে কুলুপ এঁটে আছেন বিজয়।

১৯৯৬ সালে চেন্নাইয়ে শুটিং করার সময়ে সংগীতার সঙ্গে পরিচয় হয় বিজয়ের। এই নায়কের শুটিংয়ের খবর পেয়ে সেখানে হাজির হন তার অন্ধ ভক্ত সংগীতা। শুধু বিজয়ের সঙ্গে দেখা করার জন্যই যুক্তরাজ্য থেকে ভারতে এসেছিলেন সংগীতা; এমন কর্মকাণ্ড দেখে সংগীতায় মুগ্ধ হন বিজয়। পরবর্তীতে তাদের সম্পর্ক প্রেমে রূপ নেয়।

১৯৯৯ সালের ২৫ আগস্ট সাতপাকে বাঁধা পড়েন বিজয়-সংগীতা। ২০০৫ সালে তাদের সংসার আলো করে জন্ম নেয় পুত্র জেসন সঞ্জয়। এ দম্পতির দিব্য সাশা নামে একটি কন্যা সন্তানও রয়েছে।

বিজয় অভিনীত সর্বশেষ মুক্তিপ্রাপ্ত সিনেমা ‘বিস্ট’। মুক্তির প্রতীক্ষায় রয়েছে ‘বারিসু’ সিনেমাটি। এটি পরিচালনা করছেন বামসি পেইদিপাল্লী। সিনেমাটিতে বিজয়ের বিপরীতে অভিনয় করছেন রাশমিকা মান্দানা। আগামী ১২ জানুয়ারি ভারতজুড়ে মুক্তির পরিকল্পনা করেছেন নির্মাতারা।

এই রকম আরো কিছু খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button